মাছ চাষ করে এখন স্বাবলম্বী আহমেদ মিয়াজি

কুমিল্লায় মাছ চাষে স্বাবলম্বী হয়েছেন আহমেদ মিয়াজি। জেলার দাউদকান্দি উপজেলার বাসরা গ্রামের বাসিন্দা। মাছ চাষ করার মাধ্যমে নিজের বেকারত্ব দূর করার পাশাপাশি আর্থিকভাবে স্বচ্ছল হয়েছেন তিনি। তার দেখাদেখি এখন অনেকেই মাছ চাষে আগ্রহী হয়েছেন। মাছ চাষ বিষয়ক বিভিন্ন পরামর্শ নিচ্ছেন অনেকেই।

 

 

জানা যায়, পারিবারিক সচ্ছলতা আনার পাশাপাশি বেকারত্ব দূর করার জন্য ২ লাখ টাকা পুঁজি নিয়ে ব্যবসা শুরু করেন। তবে পরিবারের স্বচ্ছতা আরও বাড়াতে ২০০৭ সালে প্রবাসে যান। দুই বছর পর দেশে ফিরে আবার মাছ চাষ শুরু করেন। এরপর তাকে আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি।

 

 

আলি আহমেদ মিয়াজি বলেন, বর্তমানে হিমালয়, সুগন্ধা, বিসমিল্লাহ, রূপসী বাংলা, আলীচর বড় বিল, একতা, তালুকদার ফিশারিজ, মুন্সি ফিশারিজ আদর্শ মৎস্য প্রকল্প নামে ৩৬০০ বিঘা জমিতে ৯টি মৎস্য প্রকল্প হয়েছে আমার। এই নয়টি মৎস্য প্রকল্প ৪ শতাধিক শ্রমিক কাজ করছে। আগামীতে মাছ চাষের পরিধি আরও বাড়ানোর পরিকল্পনার আছে আমার।

 

 

দাউদকান্দি উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার সাবিনা ইয়াসমিন জানান, আলী আহমেদ মিয়াজী প্লাবন ভূমিতে মাছ চাষ করে অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। তার দেখাদেখি এখন অনেকেই আগ্রহী হয়েছেন মাছ চাষে। নতুন করে যারা মাছ চাষ করবেন আমরা তাদের সহযোগিতা করবো।

 

তথ্যসূত্রঃ আধুনিক কৃষি খামার

Add a Comment

Your email address will not be published.

CAPTCHA