খরচ কমিয়ে বাঁশের খাঁচা দিয়ে তৈরি করুন লেয়ার মুরগির খামার

লেয়ার মুরগির খামারে বাঁশের খাঁচার ব্যবহার নিয়ে খামারিরা অনেকেই জানেন না। আমাদের দেশে ডিমের চাহিদা পূরণে বর্তমানে ব্যাপকহারে লেয়ার মুরগি পালন করা হচ্ছে। লেয়ার মুরগি পালনে খাঁচা তৈরি বেশ ব্যয়বহুল। তবে বাঁশের খাঁচা ব্যবহার করলে ব্যয় অনেকাংশেই কমে যায়। আজকের এ লেখায় আমরা জেনে নিব লেয়ার মুরগির খামারে বাঁশের খাঁচার ব্যবহার সম্পর্কে-

 

 

লেয়ার মুরগির খামারে বাঁশের খাঁচার ব্যবহারঃ

বাঁশের খাঁচা রাখার জন্য এমন স্থান নির্বাচন করতে হবে যেখানে বাতাস সহজেই চলাচল করে এবং মুরগির বিষ্টাও সহজে অপসারণ করা যায়। লেয়ার মুরগির জন্য ঘর তৈরি করতে হবে ৫২ ফিট লম্বা ২৪ ফিট পাশ। তবে কাঠ, বাঁশ, লোহা দিয়েও তৈরি করা যাবে। এটা অনেকটাই পুঁজির উপর নির্ভর করে থাকে। নতুন অবস্থায় একটি সেড করলেই হবে। খাঁচার জন্য ৪৩ ফিট লম্বা ৬ ফিট পাশ।

 

তবে ঘরটি অবশ্যই পাকা করে নিতে হবে। খাঁচার জায়গায় বেশি করে তুষ দিয়ে এই ঘরেই প্রথম বাচ্চা পালন করতে হবে। ১২ থেকে ১৪ সপ্তাহ হলে এই ঘরেই খাঁচা বসিয়ে বাচ্চা খাঁচায় নেওয়া যাবে। আর বাচ্চার হেচারি থেকে যখন যে দাম দিবে। দামটা হেচারিদের উপর নির্ভর করে থাকে।

 

 

প্রথমত লেয়ার মুরগি ১৮-১৯ সপ্তাহে ডিম দেয়া শুরু করে এবং ভালবাবে লালন পালন করলে ২৪-২৫ সপ্তাহে সব মুরগিই ডিম দিবে।

 

তথ্যসূত্রঃ আধুনিক কৃষি খামার

Add a Comment

Your email address will not be published.

CAPTCHA