সিন্ডিকেট নিয়ন্ত্রনে ২২টি পণ্যের মূল্য বেঁধে দেবে সরকার

দিন দিন মধ্যস্বত্বভোগীদের দৌরাত্ম‌্য বেরেই চলছে। তাই এই মধ্যস্বত্বভোগীদের দৌরাত্ম‌্য ঠেকাতে সরকারের কৃষি বিপণন অধিদপ্তর কাজ করছে। সেইলক্ষ্যে বাজার সিন্ডিকেট নিয়ন্ত্রণ করতে ২২টি কৃষিপণ্যের দাম নির্ধারণ করছে সরকার। সরকার নির্ধািরিত দামে পণ্য বিক্রি নিশ্চিত করতে মাঠে থাকবে তদারকি দল।

 

সংশ্লিষ্ট্র সূত্রে জানা গেছে, শুরুতে চাল, ডাল, আলু, পেঁয়াজসহ অন্তত ২২টি পণ্যের মূল্য বেঁধে দেবে সরকার। এজন্য প্রান্তিক কৃষকপর্যায়ে পণ্যের উৎপাদন খরচ সংগ্রহ করছে অধিদপ্তর। আগামী মার্চ-এপ্রিল থেকে এই কার্যক্রম শুরু হবে।

 

ইতোমধ্যেই অনেক পণ্যের প্রাথমিক উৎপাদন খরচ নিয়ে একটি প্রতিবেদন তৈরি করেছেন কর্মকর্তারা। ওই প্রতিবেদন অধিদপ্তর থেকে মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে। মন্ত্রণালয় থেকে অনুমোদনের পর কৃষি সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে বৈঠক হবে।

 

বিভিন্ন জেলা থেকে ঢাকায় পণ্যবহনকারী পরিবহন খরচের তথ্য সংগ্রহ করা হচ্ছে। এই বিষয় নিয়ে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে বৈঠক করে মূল্য নির্ধারণ করা হবে।কারন হিসেবে সরকার বলছে, উৎপাদন বেশি হলে কৃষক বাজারে পণ্যের দাম পান না। কিন্তু মধ্যস্বত্বভোগীরা ভোক্তার কাছে কয়েকগুণ বেশি দামে বিক্রি করেন। এই অবস্থা থেকে উত্তরণে কৃষিপণ‌্যের মূল্য যাচাই-বাছাই করবে কমিশন। সেই লক্ষ‌্যে বাজার মনিটরিং করে যেসব পণ্যের মূল্য তালিকা সংরক্ষণ করা হচ্ছে বলে এই দাম নির্ধারণ করবে সরকার।

 

সূত্র আরও জানায়, চাল, ডাল, ভোজ্য তেল, পেঁয়াজ, রসুন, আদা, আলু, শিম, মুলা, মিষ্টি কুমড়া, মুরগি, ডিম, গরুর মাংসসহ ৪৫টি পণ্যের যৌক্তিক পাইকারি ও খুচরা দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। পণ্যের প্রতিদিনের খুচরা ও পাইকারি দাম সেখানে উল্লেখ করা হয়েছে।

 

‘যুক্তরাজ্য, চীন, ভারতসহ বিভিন্ন দেশে কৃষি পণ্য মূল্য কমিশন রয়েছে। তারা পর্যালোচনা করে মূল্য বেঁধে দেয়। বাজারে পণ্য উদ্বৃত্ত হলে সরকারের পক্ষ থেকে কিনে সুবিধাজনক সময়ে বিক্রি করা হচ্ছে।’ তিনি আরও বলেন, ‘ভারতে মূল্য কমিশন গঠন করা হয়েছে ১৯৬৫ সালে। তারা কৃষিপণ্যের জন্য পাঁচটি আলাদা প্রতিবেদন সরকারের কাছে জমা দেয়। আমরা ভারতসহ বিভিন্ন দেশের বাজারমূল‌্য ও সরকারের কার্যক্রম বিশ্লেষণ করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেবো। বলে জানান কৃষি অধিদপ্তরের এক কর্মকর্তা।

 

কৃষি অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মোহাম্মদ ইউসুফ বলেন,‘কৃষিপণ্যগুলোর মূল্য বেঁধে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছি। মূল্য বেঁধে দেওয়ার পর সেটা মানা হচ্ছে কি না, তা কঠোরভাবে মনিটরিং করা হবে। দৈনন্দিন মূল্য তালিকা বাজারে দেখানো হবে।’ সেই আলোকেই কেনা-কাটা করতে হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

 

সিন্ডিকেট নিয়ন্ত্রণ করতে ২২টি কৃষিপণ্যের দাম নির্ধারণ করছে সরকার শিরোনামে সংবাদের তথ্য রাইজিংবিডি থেকে নেওয়া হয়েছে।

তথ্যসূত্রঃ এগ্রি কেয়ার ২৪

Add a Comment

Your email address will not be published.

CAPTCHA